ভালো লাগা এবং সময়

সব কিছুই ভালো লাগে। যা কিছু দেখি। ভালো লাগার পরিমাণ দিন দিন বাড়ছে। হয়তো বুড়িয়ে যাচ্ছি। তাই। বয়স বাড়ছে আরকি। বয়স বাড়া মানে পৃথিবী থেকে চলে যাওয়ার সম্ভাবনা বেড়ে যাওয়া। আর কে ই বা চাইবে এ পৃথিবী থেকে চলে যেতে? তাই তো সব কিছুই ভালো লাগে।

ভালো লাগে সব কিছু জানতে। মাঝে মাঝে চিন্তা করি, এ পৃথিবীর সকল সময় যদি আমার থাকতো। কত মজাই না হতো। ঘুম পাগল আমার জন্য একটু বেশি সুবিধে হতো। বেশি করে ঘুমে আবার বেশি করে পড়ালেখা, কাজ কর্ম করতে পারতাম। এখন দেখা যায় প্রায় সময় রাত জেগে পরের দিন কাজ বা পড়ালেখার উদ্দ্যেশ্যে বের হয়ে যেতে হয়। তখন হয়তো এমন কিছুই করতে হতো না। সব কিছু সুন্দর মত করতে পারতাম।

সব কিছু ভালো লাগে কেন তাই বুঝি না। হয়তো একজন এক্সপ্লোরার, তাই। কোন বই পড়লে নিজের ও লিখতে ইচ্ছে করে, লিখি। কারো কাছ থেকে কিছু শিখলে অন্যকেও শেখাতে ইচ্ছে করে, শেখানোর চেষ্টা করি। বড় কোন মানুষ দেখলে তার মত হতে ইচ্ছে করে। তার মত কিছু করার চেষ্টা করি। ভালো কোন প্রোগ্রামার দেখলে নিজের কোড লেখার উৎসাহ বেড়ে যায়। লেখার চেষ্টা করি। কারো কোন ভালো ছবি দেখলে চিন্তা করি, আমি ও কেন এত সুন্দর ছবি তুলতে পারি না।

আকাশের দিকে তাকালে হারিয়ে যেতে ইচ্ছে করে। মহাকাশে শেষ দেখতে ইচ্ছে করে। তাই আবার মনে হয় মহাবিশ্বের সকল সময় থাকলে কত না ভালো হতো। মহাকাশের এ পাশ থেকে ঐ পাশে চলে যেতাম। দেখতে দেখতে যেতাম। কত কিছুই না জানতে পারতাম।

কম্পিউটার গুলোর দিকে তাকালে এখনো দেখি, কত নির্বুদ্ধি তাদের। এখনো মানুষের কমান্ডের উপর নির্বর করে। লিখতে ইচ্ছে করে এমন কিছু, যেন মানুষের সাহায্য ছাড়াই তারা সব কিছু করতে পারে। এমন আরো কত্ত কিছু… লেখে শেষ করা যাবে না। বার বার মনে হয় আমাদের সময় কতই না কম।

জাকির হোসাইন সম্পর্কে

একজন প্রোগ্রামার। লিখতে প্রচন্ড ভালোবাসি। দুটোই। কোড এবং গল্প বা ফিকশন। পেশা হিসেবে একজন ফ্রীল্যান্সার। প্রযুক্তি নিয়ে লেখা গুলো পাওয়া যাবে আমার টেক ডায়েরীতে
এই লেখাটি পোস্ট করা হয়েছে চিন্তাভাবনা-এ। স্থায়ী লিংক বুকমার্ক করুন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।