খসড়া ভাবনাঃ সাবরিনা আপুর একটি স্ট্যাটাস এবং আমার কিছু চিন্তা

কিছু দিন আগে ২০ টি বাসে ওয়াই ফাই সংযোগ দেয়া হয়। এতে আমরা তরুণরা দারুণ আনন্দিত হয়ে উঠি। পরিচিত সবাই একই সুরে প্রশংসা করে ওঠেন। কিন্তু একটি ভিন্ন মত আসে একজন অসাম ভিন্নভাবে সক্ষম মানুষ [১] এর কাছ থেকে। তিনি হচ্ছেন সাবরিনা সুলতানা

ভাই মনের দুঃখটা কেনো একটু বুঝতে হবে তো! ব্যাপারটা হচ্ছে প্রয়োজনীয়তার। বাসে ওয়াই ফাই এর সাথে কোন বিরোধ নেই আমার/আমাদের। আমরা আফসোস করেছি, বিআরটিসি এতো কিছু করছে, আর আড়াই বছর ধরে আমাদের দাবী তিল পরিমাণও প্রাধান্য পেলো না কেনো! যেখানে আমাদের আন্দোলনে একাত্মতা পোষণ করে একদা যোগাযোগ মন্ত্রী পর্যন্ত নিজ মুখে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন বাসে র‍্যাম্প যুক্ত করার !!

এদিকে অনেকে বলছেন সুস্থ মানুষই বাসে উঠতে সমস্যা, আমার বক্তব্য, প্রতিবন্ধিতা অসুস্থতা নয় অবস্থা মাত্র। সমাজে চলার পথের বাধাগুলো দূর করুন তারাও আপনাদের মতোনই জীবন যাপন করতে শুরু করবে।

কেউবা বলছেন, হুইলচেয়ার ব্যবহারকারী মানুষ ধাক্কাধাক্কি সহ্য করে বাসে উঠতে পারবে না। আমার বক্তব্য, তাদের সহায়ক ব্যবস্থার সাহায্যে উঠার সময়টুকু আপনি দিলে কেনো পারবে না? ধীরে ধীরে বিতর্কের অবসান হবে যদি আপনি যথার্থই বুঝতে পারেন, দিনের পর দিন সহায়ক প্রবেশগম্যতা আর যাতায়াত ব্যবস্থার অভাবে এই মানুষগুলো চারদেয়ালের নিভৃতে কি ভয়ঙ্কর বন্দী জীবন কাটাচ্ছেন![২]

 

কী ভয়াবহ! এইভাবে তো কখনও ভাবি নি!! যেহেতু আমি নিজে ভিন্নভাবে সক্ষম না তাই আমি এই সমস্যাটি ধরতে পারি নি। যিনি সমস্যায় পড়েন তিনি সেই বিষয়ে ভালো লিখতে/ বলতে পারবেন এবং সমস্যার সমাধানে কী করা দরকার সেটা বলতে পারবেন।

আজ সাবরিনা আপু না লিখলে এই সমস্যার কথা জানতামও না!

বাংলা অনলাইনে এমন অনেক কমিউনিটি আছে যাঁদের সংখ্যা অনেক কম। তাঁদের স্বর/ ভয়েজ/ কথা আমরা অনেক কম শুনতে পাই।

এঁদের নিয়ে আমরা কী করতে পারি?

[১] দুর্ভাগ্যজনকভাবে অনেকে প্রতিবন্ধী বলে থাকেন। আশা করি আজ থেকেই আপনি, আমি ভিন্নভাবে সক্ষম মানুষ বলব। সাবরিনা আপু আর সালমা আপু কী পরিমাণ অসাম, আর উনাদের সামনে নিজেকে কী পরিমাণ অক্ষম মনে হয় এটা না দেখলে বুঝবেন না।

[২] https://www.facebook.com/ssultana111/posts/10201227664888556

বোহেমিয়ান সম্পর্কে

পেশায় প্রকৌশলী, নেশায় মুভিখোর আর বইপড়ুয়া। নিজেকে খুঁজে পাবার জন্য হাঁটতে থাকি। স্বপ্নের সাথে হাঁটা, স্বপ্নের জন্য হাঁটা। https://www.facebook.com/ibappy
এই লেখাটি পোস্ট করা হয়েছে চিন্তাভাবনা-এ এবং ট্যাগ হয়েছে , , , স্থায়ী লিংক বুকমার্ক করুন।

1 Response to খসড়া ভাবনাঃ সাবরিনা আপুর একটি স্ট্যাটাস এবং আমার কিছু চিন্তা

  1. তুসিন বলেছেনঃ

    কিছুদিন আগে ডিজিটাল ওয়ার্ল্ড অনুষ্ঠিত হলো। মেলার প্রবণ নামে এক ব্যক্তি কষ্ট দেখে সত্যি মনটা অনেক খারাপ হয়ে গেছে।
    http://techshohor.com/news/13218

    আমাদের সমাজের ভিন্নভাবে সক্ষম না যারা তাদের জন্য সব কিছু তৈরি করা । মাঝে মাঝে চিন্তা করি যদি কোন দিন কোন দুঘটনায় আমার কোন ক্ষতি হয়। তাহলে কি এমন অসহায় মত কোথায় যেতে পারব না আমি? বন্ধি হয়ে বসে থাকব।:(

    লেখাটি খুব ভাল হয়েছে ভাইয়া। অনেক সচেতনা মূলক একটি লিখা।
    একটি প্রশ্ন উদয় হচ্ছে “এঁদের নিয়ে আমরা কী করতে পারি?” ভাইয়া প্ল্যান তৈরি করে ফেলুন সাথে আছি।

তুসিন শীর্ষক প্রকাশনায় মন্তব্য করুন জবাব বাতিল

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।